১৮ই মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ রাত ৯:৫২

শেখ হাসিনা গড়বেন স্মার্ট বাংলাদেশ,আর স্মার্ট বরিশাল বিনির্মানে কার্যকরী পদক্ষেপ নেওয়ার অঙ্গীকারকরে খোকন সেরনিয়াবাত

বরিশাল অফিস:
  • আপডেট সময়ঃ বুধবার, মে ২৪, ২০২৩,
  • 44 পঠিত

দেশকে ২০৪১ সালের মধ্যে ডিজিটাল থেকে স্মার্ট বাংলাদেশে উন্নীত করার লক্ষ্য নিয়ে কাজ চলছে বলে ঘোষণা দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এবার বরিশাল সিটিকে তিলোত্তমা নগরী হিসেবে গড়ার প্রতিশ্রুতি দিয়ে স্মার্ট বরিশাল বিনির্মানের অঙ্গীকারবদ্ধ হন আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী খোকন সেরনিয়াবাত।

সম্প্রতি নগরীর এক জনসভায় তিনি বলেন, শেখ হাসিনার স্মার্ট বাংলাদেশের ভিত্তি হবে স্মার্ট নাগরিক, স্মার্ট অর্থনীতি, স্মার্ট সরকার এবং স্মার্ট সমাজ ব্যবস্থা। অন্যদিকে, বরিশালের স্মার্ট ও তিলোত্তমা নগরীর ভিত্তিও হবে চারটি। সেখানে স্মার্ট যোগাযোগ ব্যবস্থা, স্মার্ট অবকাঠামো, স্মার্ট নিরাপত্তা ব্যবস্থা ও স্মার্ট বর্জ্য অপসারণ ব্যবস্থা থাকবে।

নির্বাচন আসলেই বড় বড় সিটি করপোরেশনের মেয়র প্রার্থীরা সিটি করপোরেশনকে তিলোত্তমা নগরী হিসেবে গড়ে তোলার নানান প্রতিশ্রুতি দিয়ে থাকেন। কিন্তু নানান প্রতিবন্ধকতা ও সীমাবদ্ধতার কারণে চেষ্টা করেও তা পুরোপুরি সফল করা যায় না। তবে ব্যতীক্রম খোকন সেরনিয়াবাত।

স্মার্ট ও তিলোত্তমা নগরী গড়ার বিষয়ে তিনি বলেন, শুধু ভোট চাইবার খাতিরেই আমার এই প্রতিশ্রুতি নয়। পরবর্তীতে ভোট চাইতে এসে যাতে আপনাদের সামনে প্রতিশ্রুতি খেলাপের জন্য আমাকে লজ্জা পেতে না হয় তার জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা আমার থাকবে ইনশাআল্লাহ। আর এজন্য আমি সব সময় আপনাদের দোয়া ও সহযোগিতা কামনা করছি।

উল্লেখ্য, স্মার্ট তিলোত্তমা নগরী বলতে রাস্তাঘাট, প্রশাসন, সুন্দর ও সুশৃঙ্খল পরিবেশ সবকিছুর সমন্বয়ে নিখুঁত এক নগরীকে বোঝায়। মাত্রাতিরিক্ত জনসংখ্যার চাপ ও নানান সীমাবদ্ধতার কারণে রাজধানী ঢাকাকে তিলোত্তমা নগরীর গড়ার প্রচেষ্টা পুরো সফল না হলেও রাজধানী ঢাকার মতো অতিরিক্ত চাপ বা ঝক্কি ঝামেলা পোহাতে হয় না বরিশালে। তাই বরিশালকে স্মার্ট ও তিলোত্তমা নগরীতে পরিণত করা সম্ভব বলে মনে করছেন নগর বিশেষজ্ঞরা।

 

সংবাদটি শেয়ার করুন ...

এই বিভাগের আরো সংবাদ...
© All rights reserved © ২০২৩ স্মার্ট বরিশাল
EngineerBD-Jowfhowo